শবে কদর কবে ২০২৩ | শবে কদর ২০২৩ | শবে কদর নামাজের নিয়ম-ফজিলত

আসসালামু আলাইকুম।লাইলাতুল শব্দের অর্থ রাত্রি বা রজনি। আর কদর শব্দের অর্থ সম্মানিত। অর্থাৎ লাইলাতুল কদর বা শবে কদর মানে হল সম্মানিত রাত। আজকে আমরা আলচনা করব  শবে কদর কবে ২০২৩ ,শবে কদর ২০২৩ , শবে কদর নামাজের নিয়ম , শবে কদরের ফজিলত , শবে কদরের নিয়ত এই বিষয়গুলো নিয়ে ইনশাআল্লাহ। অতি সংক্ষেপে তথ্যবহুল কন্টেন্ট হিসাবে নিচের বিশ্লেশনে আপনিও অংশ নিন এবং সাথেই থাকুন।

শবে কদর কবে 

আসলে পবিত্র রমজান মাস আমাদের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ , ইবাদতের একটি মাস। এই মাসে পবিত্র কুরআনুল কারিম নাজিল হয়েছে। রমজান মাসটিকে ১০ দিন করে তিনটি ভাগে ভাগ করা হয়েছে।এই মাসের গুরুত্বপূর্ণ ও ফজিলতপূর্ণ একটি রাত সেটি হল শবে কদর ।হাদিস থেকে বর্ণিত যে,

 " তোমরা শেষ দশকের বেজোড় রাতে শবে কদর তালাশ করো।" (বুখারি, হাদিস : ২০১৭)


শবে কদর কবে ২০২২
শবে কদর কবে  শবে কদরের ফজিলত শবে কদর কবে ২০২২  শবে কদর ২০২২  শবে কদর নামাজের নিয়ম-ফজিলত


শবে কদর কবে  শবে কদরের ফজিলত শবে কদর কবে ২০২৩  শবে কদর ২০২৩ শবে কদর নামাজের নিয়ম-ফজিলত

সুতরাং পবিত্র রমজানের  শেষের ১০ দিনের বিজোড় রাত গুলোতে শবে কদর ২০২৩ ইবাদতে নিজেকে লিপ্ত রাখতে হবে। যদিও পুরো রমাজান মাসই ইবাদতের মাস।তার মধ্যে উত্তম হল শবে কদরের ফজিলত পূর্ণ এই রাত ।তবে অন্যান্য রাতের চেয়ে শেষ দশকের বেজোড় রাতগুলোর কোনো একটিতে হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। আর এর মধ্যে ২৭তম রাতে শবে কদর ২০২৩ হওয়ার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি। বিভিন্ন হাদিস থেকে এ ইঙ্গিত পাওয়া যায়।তাই ২৬ এপ্রিল দিবাগত রাত শবে কদর ২০২৩ হউয়ার সম্ভাবনা বেশি


শবে কদরের ফজিলত

শবে কদরের ফজিলত অনেক। বলা হয়ে থাকে হাজার মাসের চেয়ে উত্তম এই মাস , গুনাহ মাপের মাস। আর এই রমজান মাসেই এমন একটি রাত আমাদের জন্য অপেক্ষা করতেসে যা আমাদের সকলেরই জানা সেটি হল শবে কদর ২০২৩।এত এত বরকতময় এই রাত, এই রাতের ইশা এবং ফজরের নামাজ জামাতের সাথে আদায় করলেও সারা রাত নামাজের সউয়াব আল্লাহ আওনার আমার আমলনামায় লিখে দিবেন ।সুবহানাল্লাহ। হাদিসে আছে যে, 

"যে ব্যক্তি ঈমানের সঙ্গে সওয়াবের আশায় শবে কদর এ ইবাদত করবে, তার আগের সব গুনাহ মাফ করে দেওয়া হবে।" (মুসলিম, হাদিস : ৭৬০; বুখারি, হাদিস : ২০১৪) 

কততা গুরুত্বপূর্ণ এই শবে কদর ২০২৩ রাত্রি আমরা কি কল্পনা করেছি? এই রাতেই পবিত্র কুরআন নাজিল হয়েছে। স্বয়ং মহান আল্লাহ নিজে বলেছেন যে ,

"নিশ্চয়ই আমি কোরআন নাজিল করেছি লাইলাতুল কদরে। তুমি কি জানো, লাইলাতুল কদর কী? লাইলাতুল কদর হাজার মাসের চেয়েও উত্তম।" (সুরা কদর, আয়াত: ১-৩)

তাই এই রাতে অবহেলা করা যাবে না । মন প্রান দিয়ে আল্লাহকে ডাকতে হবে। আমরা সবাই গুনাহগার ,গুনাহ মাপের জন্য আল্লাহর কাছে ক্ষমা চাইতে হবে তউবা করতে হবে। নিশ্চয়ই আল্লাহ ক্ষমাশীল । এই পবিত্র লাইলাতুল কদর বা শবে কদর ২০২২ এর উসিলায় আল্লাহ আমাদের সকল গুনাহ খাতা গুলা মাফ করে আমল দিয়ে ভহপুর কএ দিন। এই শবে কদর ২০২২ যারা মিস করবে তাদের মত হতভাগা আর কেও নাই। স্বয়ং মহানবি হযরত মহাম্মদ (সাঃ) বলেছেন যে,

‘তোমরা এমন একটি মাস পেয়েছ, যার মধ্যে এমন একটি রজনী রয়েছে, যা হাজার মাসের চেয়ে উত্তম। যে ব্যক্তি এই পুণ্যময় রাতে বঞ্চিত থাকে, সে সম‚হ কল্যাণ থেকেই বঞ্চিত থাকে। সে খুবই হতভাগা, যে এর কল্যাণ থেকে বঞ্চিত থাকে।  (মিশকাত, খণ্ড : ০১, পৃষ্ঠা : ১৭৩; ইবনে মাজাহ : দ্বিতীয় খণ্ড, পৃষ্ঠা : ১২০) 

শবে কদর নামাজের নিয়ম

লাইলাতুল শব্দের অর্থ রাত্রি বা রজনি। আর কদর শব্দের অর্থ সম্মানিত। অর্থাৎ লাইলাতুল কদর বা শবে কদর মানে হল সম্মানিত রাত। শবে কদর নামাজের নিয়ত সম্পর্কে অনেকেই জানতে চান। বাংলা বা আরবি দুইভাবেই শবে কদরের নিয়ত করতে পারেন।
শবে কদরের নিয়ত (আরবি)

"নাওয়াইতু আন্‌ উছাল্লিয়া লিল্লাহি তা’য়ালা রাকআতাই সালাতিল লাইলাতিল কাদ্‌রি নফ্‌লে মুতাওয়াজ্জিহান ইলা জিহাতিল কা’বাতিশ শারীফাতি- আল্লাহু আকবর।"

শবে কদরের নিয়ত (বাংলা)

"আমি কিবলামুখি হয়ে আল্লাহর (সন্তুষ্টির) জন্য শবে কদরের দুই রাকআত নফল নামাজ পড়ার নিয়ত করলাম- আল্লাহু আকবার।"

শবে কদরের নিয়ম সাধারন নামাজের মতই। দুই রাকাত  করে শবে কদরের নিয়ত করতে হবে। যে যা পারেন নফল নামাজ আদায় করবেন চেষ্টা করবেন সর্বনিম্ন ২০ রাকাত সালাত আদায় করতে। প্রতিবার সুরা ফাতিহা  পড়ার পর শবে কদর সুরা পড়ে রুকু সিজদায় ছলে যাবেন।
বিঃদ্রঃ যারা শবে কদর সুরা জানেন না তারা তিনবার সুরা ইখলাস পড়ে নামআজ আদায় করলে নামাজ হয়ে যাবে ইনশাল্লাহ। শবে কদর নামাজ শেষে “সুব্হানাল্লাহি ওয়াল হাম্‌দু লিল্লাহি ওয়া লা-ইলাহা ইল্লাল্লাহু ওয়াল্লাহু আকবর, লা হা’ওলা কুয়্যাতা ইল্লাবিল্লাহিল্‌ আলীয়্যিল আযীম” এই দুয়া পড়া উত্তম 

আসা করি শবে কদর ২০২৩ এ আপনারা শবে কদরের ফজিলত সম্পর্কে ধারনা পেয়েছেন। শবে কদর কবে ২০২২ , শবে কদর নামাজের নিয়ম ,শবে কদর নামাজের নিয়ত সব নিয়েই ধারনা পেয়েছেন। আরও তথপুরন কন্টেন্ট পেতে আমাদ্র সাথেই থাকুন।

আরও পরুনঃ 

Next Post Previous Post
2 Comments
  • Unknown
    Unknown April 14, 2022 at 11:28 PM

    ধন্যবাদ। সুন্দর করে উপস্থাপনের জন্য

    • Admin sobnews
      Admin sobnews April 19, 2022 at 4:42 PM

      take love

Add Comment
comment url
Post-by: Admin-Sobnews